Main Menu

স্বাস্থ্যবান নারীরা দেরিতে মা হন কেন?

মাত্রাতিরিক্ত ওজন শরীরের জন্য ভালো নয়, এটা কম-বেশি আমরা সবাই জানি। মুটিয়ে যাওয়ার কারণে শরীরের নানা রোগ বাসা বাঁধে। শুধু তাই নয়, মা হওয়ার ক্ষেত্রেও প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করে অতিরিক্ত ওজন বা ওবেসিটি এমনটাই দাবি করেছেন গবেষকরা।

সম্প্রতি এক গবেষণায় দেখা গেছে, শরীরে যখন মেদের পরিমাণ বেড়ে যায়, তখন কিছু রিপ্রোডাকটিভ হরমোন ঠিক মতো কাজ করতে পারে না। ফলে নারীদের ক্ষেত্রে ডিম এবং পুরুষদের ক্ষেত্রে বীর্জের ওপর এর প্রভাব পরে। ফলে গর্ভধারনের ক্ষেত্রেও নানা সমস্যা দেখা দিতে শুরু করে।

বিশেষজ্ঞদের মতে, ওবেসিটি হল সেই অবস্থা যেখানে কোনো মানুষের ওজন স্বাভাবিকের থেকে বেশি হয়ে যায়। শুধু তাই নয় আমাদের দৈহিক উচ্চতার সঙ্গে দৈহিক ওজনের অনুপাত বডি ম্যাস ইনডেক্স (বিএমআই) বা বেসাল মেটাবলিক রেটও স্বাস্থ্যকর মাত্রার থেকে উপরে চলে যায়।

ওবেসিটি বা মাত্রাতিরিক্ত ওজনের সমস্যা দেখা দিলে তখন নানা ধরনের জটিল রোগ শরীরে বাসা বাঁধতে শুরু করে। যেমন: জয়েন্টে ব্যথা, ক্লান্তি, হাই-কোলেস্টেরল, হাইপারটেনশন, হার্ট ডিজিজ ইত্যাদি।

গবেষণায় দেখা গেছে, স্বামী-স্ত্রী, উভয়েই যদি মোটা হন তাহলে বাচ্চা নেয়ার ক্ষেত্রে তাদের নানা সমস্যায় পড়তে হয়।

একদল গবেষক মেদবহুল স্বামী-স্ত্রীর ওপর স্টাডি করে দেখেছেন প্রায় ৫৯ শতাংশ ক্ষেত্রে তাদের বাচ্চা হতে সমস্যা দেখা দেয় অথবা গর্ভধারনে অনেক সময় লেগে যায়।

দুটি দলের ওপর এই গবেষণা চালিনো হয়, একটা দলে ছিল ৩৫ বিএমআই রয়েছে এমন স্বামী-স্ত্রী। আর অন্য দলের স্বামী-স্ত্রীদের ওজন ছিল কম, ২০-৩০ বিএমআই।

গবেষণা শেষে দেখা যায়, যেসব স্বামী-স্ত্রীর ওজন বেশি তাদের সন্তান নিতে অনেক সময় লেগে যায়, যেখানে কম ওজনের নারীরা অনেক সহজে গর্ভবতী হতে পেরেছেন। এর থেকেই প্রমাণিত হয় যে, অতিরিক্ত মেদ মা হওয়ার ক্ষেত্রে একটা বড় বাঁধা।

(Visited 1 times, 1 visits today)





Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*

69 − = 65

Skip to toolbar