Main Menu

জানা-অজানা

সেপটিক ট্যাংক যেন মৃত্যুফাঁদ

সেপটিক ট্যাংক। বাড়ি বা ভবনে পানির চাহিদায় বেশ গুরুত্ব বহন করে। অবশ্য বন্ধ ট্যাংকে এক প্রকার বিষাক্ত গ্যাস সৃষ্টি হয়। এ কারণে এটি সময়ের জন্য মৃত্যুফাঁদে পরিণত হয়। তবে আতঙ্কিত না হয়ে ট্যাংক পরিষ্কার করার আগে সতর্ক থাকার পক্ষে মত দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। ১০ জানুয়ারি উত্তর মাদারটেকের ফজল মিয়ার বাড়ির সেপটিক ট্যাংক পরিষ্কার করতে নামেন ভাড়ায় আনা শ্রমিক আতিয়ার রহমান। ট্যাংকের মুখ খুলে তিনি ভেতরে নামেন। এক সময় অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরে তাকে উদ্ধার করে স্থানীয় একটি ক্লিনিকে নেওয়া হলে, চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। একইভাবে গাজীপুরের কালিগঞ্জের বাসায় ট্যাংক পরিষ্কার করতে নামেন দুই ভাই মাসুম ও জুয়েল হোসেন। ট্যাংকে নামার সঙ্গেবিস্তারিত


কবজিতে ৪ রেখা থাকলে আপনি যেমন মানুষ

জ্যোতিষশাস্ত্র এবং অন্যান্য ভবিষ্যৎ নির্ণায়ক জ্ঞানসম্মত উপায় ছাড়াও এখনো প্রাচীন অনেক চর্চা রয়েছে, যা মানুষের ভবিষ্যৎ বলে দিতে পারে বলে মানুষ বিশ্বাস করে। এমনই একটি প্রাচীন পদ্ধতি হলো হস্তরেখাবিদ্যা বা মানুষের হাতের রেখা দেখে ভবিষ্যৎ বলে দেওয়ার বিদ্যা।   হাতের রেখা বিচারে অনেক ক্ষেত্রে হাতের কবজির রেখাকেও গুরুত্ব দেওয়া হয়। জ্যোতিষশাস্ত্র মতে, কবজির রেখা থেকে জানা যেতে পারে কোনো মানুষের স্বাস্থ্য ও জীবন সম্পর্কে নানা তথ্য।   যা হোক, সম্প্রতি ভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমে এ-সংক্রান্ত প্রতিবেদন অনুসারে জেনে নিন হাতের কবজির রেখাগুলো আপনার সম্পর্কে কী প্রকাশ করে।   হাতের তালুর ঠিক নিচে যে রেখাগুলো থাকে, সেগুলোকে ইংরেজিতে বলা হয় ব্রেসলেট লাইনস।বিস্তারিত


পর্দার অন্তরালের গল্পঃ Life of Pi

অঘটন-ঘটন পটিয়সী হলিউডে সম্ভব যেকোনো কিছুই। কিন্তু তারপরেও মাঝে মাঝে হলিউড এমন কিছু চোখধাঁধানো চলচ্চিত্র উপহার দেয় যা দেখে অবাক না হয়ে উপায় নেই। বলিউডের ক্লাসিক অভিনেতা ইরফান খান অভিনিত ২০১২ সালে নির্মিত হয় অস্কারজয়ী বিখ্যাত চলচ্চিত্র “লাইফ অফ পাই”। এখানে কানাডা অভিমুখী এক জাহাজে চিড়িয়াখানার কিছু প্রাণীসহ যাত্রা করে এক কিশোর ও তার পরিবার। হঠাৎ ঝড়ের কবলে পড়ে জাহাজ ডুবে যায় এবং পাই (সুরাজ শর্মা) নামের কিশোর ছাড়া আর সবার সলিল সমাধি ঘটে। পাইয়ের সাথে নৌকায় আশ্রয় নেয় ভয়ানক এক রয়েল বেঙ্গল টাইগার। এভাবে কাহিনী এগিয়ে যেতে থাকে, কিন্তু এই চলচ্চিত্রের সবচেয়ে আকর্ষণীয় বিষয় হল এর সমুদ্রের দৃশ্যাবলী আর নৌকায়বিস্তারিত


বজ্রপাত থেকে বাঁচার ১৪ উপায় জেনে রাখুন

এ মৌসুমে দেশে বজ্রপাতের সংখ্যা অনেক বেড়ে যায়। আর বজ্রপাতের কারণে এ সময় জানমালের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়। এ লেখায় দেওয়া হলো কয়েকটি উপায়, যা বজ্রপাত থেকে বাঁচতে সহায়ক হবে। এক নিবন্ধে বিষয়টি জানিয়েছে উইকিহাউ। ১. দালান বা পাকা ভবনের নিচে আশ্রয় নিন ঘন ঘন বজ্রপাত হতে থাকলে কোনো অবস্থাতেই খোলা বা উঁচু স্থানে থাকা যাবে না। সবচেয়ে ভালো হয় কোনো একটি পাকা দালানের নিচে আশ্রয় নিতে পারলে। ২. উঁচু গাছপালা ও বিদ্যুৎ লাইন থেকে দূরে থাকুন কোথাও বজ্রপাত হলে উঁচু গাছপালা বা বিদ্যুতের খুঁটিতে বজ্রপাতের সম্ভাবনা বেশি থাকে। তাই এসব স্থানে আশ্রয় নেবেন না। খোলা স্থানে বিচ্ছিন্ন একটি যাত্রী ছাউনি,বিস্তারিত


জেনেনিন কে আনল ট্রাফিক সিগন্যাল

১৯৩০ সালের দিকে নিরবচ্ছিন্নভাবে ট্রেন চলাচলের জন্য বিভিন্ন দেশের রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ রঙের ব্যবহার শুরু করেছিল। ট্রেনচালকের প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দিতে তারা এর ব্যবহার করত। বিপদের রং হিসেবে লাল রং ব্যবহারের প্রচলন ছিল তখন। তাই ট্রেন থামানোর নির্দেশ হিসেবে লাল, সামনে চালিয়ে যাওয়ার নির্দেশ হিসেবে সাদা এবং অপেক্ষা করা কিংবা সতর্কতা অবলম্বনের জন্য সুবজ রং ব্যবহার হতো। কিন্তু সাদা রঙের ব্যবহার নিয়ে সমস্যায় পড়তে হলো অনেক। ১৯১৪ সালে একটি ট্রেনকে থামার নির্দেশনা দিয়ে কর্তৃপক্ষ লাল রঙের বাতি প্রজ্বলন করে। কিন্তু দুর্ঘটনাবশত বাতিটি তার ধারক স্ট্যান্ড থেকে আলগা হয়ে নিচে পড়ে গিয়েছিল। এ সম্পর্কে কর্তৃপক্ষ বা অন্য কেউ অবগত ছিলেন না। বাতিটি আলগাবিস্তারিত


Skip to toolbar